২৪শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, সন্ধ্যা ৬:৫১

খাল উদ্ধার: যতই প্রভাবশালী হোক ছাড় নয়, হুঁশিয়ারি আতিকের

রাজধানীর মোহাম্মদপুরে খাল উদ্ধারে উত্তর সিটি করপোরেশনের দ্বিতীয় দিনে (সোমবার ২৪ জানুয়ারি) অভিযানে গুঁড়িয়ে দেওয়া হয় বহুতল ভবন ও মার্কেট। অভিযানে রাজনৈতিক প্রভাবকে প্রশ্রয় দেওয়া হবে না বলে হুঁশিয়ার দিয়েছেন উত্তরের মেয়র আতিকুল ইসলাম।

দেখে বোঝার উপায় নেই এটি মোহাম্মদপুরের লাউতলা খালের অংশ ছিল একসময়। খাল দখল করে গড়ে উঠেছে অবৈধ স্থাপনা। নির্মাণাধীন তিনতলা মমতাজ কমপ্লেক্সের বর্ধিতাংশ এক্সকেভেটর দিয়ে ভেঙে ফেলা হয়।

গুঁড়িয়ে দেওয়া হয় বহুতল ভবন ও দোকানপাট। উচ্ছেদের পাশাপাশি ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের ময়লার গাড়িতে চলছে ধ্বংসস্তূপ সরিয়ে নেওয়ার কাজও।

স্থানীয়রা জানান, দীর্ঘদিন ধরে দোকান ভাড়া দিয়ে ব্যবসা চালিয়ে আসছিলেন তারা। আগেভাগে নোটিশ না দেওয়ায় কিছুটা বিপাকে পড়েছেন।

দখলদার যত প্রভাবশালীই হোক না কেন, কেউ ছাড় পাবে না বলে হুঁশিয়ার দিয়েছেন উত্তরের মেয়র আতিকুল ইসলাম। বলেন, কথা হচ্ছে অবৈধভাবে যারা ঢাকা শহরের জায়গা দখল করবে তাদের জন্য একটা বার্তা দিতে চাই কেউ ছাড় পাবে না।

খাল উদ্ধার করে পুনরায় সংযোগ হবে বুড়িগঙ্গার সঙ্গে। আর খালের দুই পাশে হাঁটার জন্য থাকবে ২০ ফুট জায়গা বলে জানান উত্তরের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সেলিম রেজা বলেন।

দখল করা খাল উদ্ধার না হওয়া পর্যন্ত উচ্ছেদ অভিযান চলবে বলে জানিয়েছে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন।গতকাল রোববার (২৩ জানুয়ারি) মোহাম্মদপুরে খাল উদ্ধারে অভিযান ‍শুরু করেছে উত্তর সিটি করপোরেশন।