২রা ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ, রাত ৩:৪৮

আমার কাছে ঘেঁষবেন না, আমি বিবাহিত

বিনোদন ডেস্ক: বলিউডের ‘মির্চি গার্ল’ রাখি সাওয়ান্তকে সামনে পেলেই ছবি তোলার জন্য ব্যস্ত হয়ে পড়েন অনুরাগীরা। রাখিও তাদের আবদার মেটাতেন। তবে আদিলকে বিয়ের পর খানিকটা বদলে গেছেন তিনি।

সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। যেখানে দেখা যাচ্ছে, একজন অনুরাগী রাখির সঙ্গে ছবি তুলতে চাইছেন। ছবি তোলার সময় সেই অনুরাগী রাখির খুব কাছাকাছি আসায় অভিনেত্রীর স্পষ্ট জবাব, ‘আমার কাছে ঘেঁষবেন না, আমি বিবাহিত।’

তিনি আরও বলেন, আগের বিষয় আলাদা। এখন আমাকে টাচ করতে পারবেন না। আমি আদিলের বউ।’জানা গেছে, ২০২২ সালের ২ জুলাই প্রেমিক আদিল ডুরানির সঙ্গে গোপনে আইনি বিয়ে সেরেছেন রাখি। সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় তাদের বিয়ের ছবি ভাইরাল হয়েছে।

এদিকে মুসলিম যুবক আদিলকে বিয়ের পর নিজের নাম পরিবর্তন করেছেন রাখি। নামের সঙ্গে ‘ফাতিমা’ যুক্ত করে এখন তিনি ‘রাখি সাওয়ান্ত ফাতিমা’। এমনকি হিজাব লুকেও দেখা গেছে তাকে।

প্রসঙ্গত, প্রেম, বিয়ে ও বিচ্ছেদ ইস্যুতে প্রায়ই আলোচনায় আসেন রাখি। এ ছাড়াও বিতর্কিত কাজ কিংবা মন্তব্যে লাইমলাইটে আসাটা তার রুটিনে পরিণত হয়েছে।

এর আগে এক সাক্ষাৎকারে রাখি জানিয়েছিলেন, ‘রীতেশের সঙ্গে বিচ্ছেদের পর আমি ডিপ্রেশনে ভুগছিলাম। সে সময় আদিল আমার জীবনে আসে। প্রথম দেখা হওয়ার একমাসের মধ্যেই সে আমাকে প্রেমের প্রস্তাব দেয়। তবে আমি এই প্রস্তাবের জন্য প্রস্তুত ছিলাম না। আমার মনে হয় সৃষ্টিকর্তা ওকে (আদিল) আমার কাছে পাঠিয়েছে।’

তিনি আরও জানিয়েছিলেন, ‘আদিলের পরিবার এই সম্পর্কের বিরুদ্ধে। কারণ, আমি সিনেমা, টিভি ইন্ডাস্ট্রিতে খুব গ্ল্যামারাস ব্যক্তি। আমার সাজগোজ ওর (আদিল) পরিবারের অপছন্দ। আর এ কারণে ওর বাড়িতে ঝামেলাও হয়েছে। তবে প্রয়োজনে আমি নিজেকে বদলাতে রাজি আছি। যদিও ওর দিক থেকে কেউ আমাকে পরিবর্তন করতে বাধ্য করেনি। অনেক কষ্টে ভালোবাসা পেয়েছি। আশা করি, আদিলের পরিবার আমাকে মেনে নেবে।’ রাখির সেই ইচ্ছা পূরণ হয়েছে। আদিলের পরিবার তাকে মেনে নিয়েছে। আরটিভি