৫ই ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, সকাল ১১:৪৮

মোহাম্মদপুরে পথচারী পারাপারে ‘পুশ বাটন’

রাজধানীর মোহাম্মদপুরের এক স্কুলের সামনে পথচারী পারাপারের জন্য ‘পুশ বাটন’ ট্রাফিক সিগন্যাল চালু করেছে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন।
মেয়র মো. আতিকুল ইসলাম বৃহস্পতিবার মোহাম্মদপুরের আসাদ অ্যাভিনিউয়ের গ্রিন হেরাল্ড ইন্টারন্যাশনাল স্কুলের সামনের সড়কে ‘পুশ বাটন টাইম কাউন্টডাউন সিগন্যাল পোল’সহ জেব্রা ক্রসিং উদ্বোধন করেন।

ওই পোলের সঙ্গে যুক্ত বাটনে চাপ দিলে পথচারীর দিকে থাকা সবুজ বাতি জ্বলবে আর সড়কের যানবাহনের দিকে জ্বলবে লাল বাতি। যানবাহন থেমে গেলে পথচারীরা সড়ক পার হতে পারবেন। প্রাথমিকভাবে পথচারী পারাপারের জন্য ২৫ সেকেন্ড এবং গাড়ি চলাচলের জন্য ১২৭ সেকেন্ড সময় দেওয়া হয়েছে।

পথচারীর সবুজ বাতি জ্বলা শেষ হলে যানবাহন চলাচলের জন্য ১২৭ সেকেন্ডের সিগন্যাল শুরু হবে। এর মধ্যে নতুন কোনো পথচারী বাটনে চাপ দিলেও তার দিকের সবুজ বাতি জ্বলবে না। এ পুশ বাটন চলবে গ্রিন হেরাল্ড ইন্টারন্যাশনাল স্কুলের ব্যবস্থাপনায়। সেখানে পথচারী ও যানবাহন চলাচল নিয়ন্ত্রণ করার জন্য গ্রিন হেরাল্ড কর্তৃপক্ষ দুজন লোক নিয়োগ দিয়েছে।

স্কুলের সামনে একটি সাইনবোর্ডে পথচারীদের এই পুশ বাটনের ব্যবহারবিধি জানানো হয়েছে। আর জেব্রা ক্রসিংয়ে শারীরিক প্রতিবন্ধীসহ সব বয়সের মানুষের পারাপার সহজ করতে ফুটপাত সড়কের সঙ্গে মেলানো হয়েছে। পুশ বাটনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে মেয়র আতিকুল ইসলাম শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে বলেন, “শিক্ষার্থীরাই বাংলাদেশ। তোমরাই আমাদের ভবিষ্যৎ। তোমরাই আমাদের রাষ্ট্রনায়ক। কেননা তোমরা আমাদের ভবিষ্যৎ প্রজন্ম, তোমাদের কাছে আমাদের অনেক কিছু শেখার আছে।”

মহাখালীর ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে আরেকটি পুশ বাটন টাইম কাউন্টডাউন সিগনাল পোলসহ জেব্রাক্রসিং চালুর কাজ প্রায় শেষ পর্যায়ে। এ দুটি পুশ বাটন টাইম কাউন্টডাউন সিগন্যাল পোল চালু করতে  প্রায় ৯ লাখ ২০ হাজার টাকা ব্যয় হয়েছে বলে জানিয়েছে সিটি করপোরেশন কর্তৃপক্ষ।

উত্তর সিটির কাছে নগরীর ৪৮টি স্থানে এই পুশ বাটন টাইম কাউন্টডাউন সিগন্যালসহ জেব্রা ক্রসিং নির্মাণের চাহিদা দিয়েছে ডিএমপি। এর মধ্যে ২০টির নির্মাণ কাজ প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।