২৭শে নভেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, দুপুর ১২:০৭
শিরোনাম:

চাঁদা না দেয়ায় ঠিকাদারকে প্রকাশ্যে অস্ত্র ঠেকিয়ে মারধর

রাজধানীর শাহজাহানপুর এলাকায় শহিদুল আলম সুমন (৩৪) নামে এক ঠিকাদারকে অস্ত্র ঠেকিয়ে চাঁদাদাবি ও হত্যার হুমকি দিয়েছে সন্ত্রাসীরা। তিনি ‘ইন্টিমেট ট্রেডিং হাউসের’ স্বত্বাধিকারী। বুধবার বিকেলে রেলওয়ে কলোনি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় তিনি শাহজাহানপুর থানায় স্থানীয় সন্ত্রাসী রতন মৃধার বিরুদ্ধে জিডি করেন। রতনের বিরুদ্ধে হত্যা ও মাদকসহ ৯টি মামলা রয়েছে।

ভুক্তভোগী সুমন বলেন, খিলগাঁও বনশ্রী এলাকায় তার বাসা। ঘটনার দিন বিকেলে মোটরসাইকেল যোগে গুলিস্তান যাচ্ছিলেন তিনি। রেলওয়ে কোলনী এলাকায় পৌঁছেলে রতন মৃধা ও তার সহযোগীরা গতিরোধ করে। তাকে মোটরসাইকেল থেকে নামিয়ে পিস্তল ঠেকিয়ে মারধর করে। সুমন বাঁধা দিলে রতন বলেন ঠিকাদারি করছো আমার কমিশন কোথায়? বারবার দেখার করার কথা বললেও দেখা করনি। শেষ বারের মতো সতর্ক করলাম। রতন বৃহত্তর মতিঝিল থানা ছাত্রলীগের বহিষ্কৃত সাধারণ সম্পাদক। রতন ও তার ভাই ল্যাংড়া মানিকের নামে শাহজাহানপুর, মতিঝিল ও মুগদা থানায় হত্যা, মাদক, অস্ত্র ও ছিনতাইসহ প্রায় ২০টি মামলা রয়েছে। তার মা ইয়াবা মামলায় জেল খেটেছে।

এ বিষয়ে শাহজাহানপুর থানার ওসি শহিদুল হক বলেন, রতন এক ঠিকাদারকে মারধর করেছে। ওই ঠিকাদার জিডিও করেছে। রতনের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে। তার বিরুদ্ধে কতটি মামলা রয়েছে, তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে।