৩০শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, বিকাল ৩:৩৬
শিরোনাম:

চাঁপাইয়ে ভোটকেন্দ্রে আ.লীগের দুপক্ষের হাতাহাতি

চাঁপাইনবাবগঞ্জ-৩ (সদর) আসনের উপনির্বাচনে ভোটগ্রহণের শুরুতেই আওয়ামী লীগের দুপক্ষের মধ্যে পাল্টাপাল্টি ধাওয়া ও হাতাহাতির ঘটনা ঘটেছে।

বুধবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা আদর্শ উচ্চবিদ্যালয় কেন্দ্রে এ উত্তেজনা দেখা দেয়। এতে কয়েকজন আহত হয়েছেন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে লাঠিচার্জ করেছে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী।

জানা গেছে, চাঁপাইনবাবগঞ্জ-৩ আসনের উপনির্বাচনে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক এমপি আবদুল ওদুদ বিশ্বাস এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে জেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি সামিউল হক লিটন আপেল প্রতীক নিয়ে এবং বাংলাদেশ ন্যাশনালিস্ট ফ্রন্ট (বিএনএফ) মনোনীত প্রার্থী কামরুজ্জামান খান টেলিভিশন প্রতীকে নির্বাচনে অংশ নিয়েছেন।

সকাল সাড়ে ৮টার দিকে ভোটগ্রহণ শুরুর পরই চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা আদর্শ উচ্চবিদ্যালয় কেন্দ্র পরিদর্শন করেন আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী সামিউল হক। একই সময়ে নৌকার সমর্থক হিসেবে ওই কেন্দ্রে উপস্থিত ছিলেন জেলা কৃষক লীগের সাবেক সহসভাপতি আবদুল হাকিম।

এ সময় নৌকা ও আপেল প্রতীকের প্রার্থী-সমর্থকদের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দেয়। একপর্যায়ে শুরু হয় মারামারি। এতে দুপক্ষের কয়েকজন আহত হয়েছেন। সকাল ৯টা পর্যন্ত কেন্দ্র ছিল উত্তপ্ত। পরে পুলিশ, র্যা ব ও ম্যাজিস্ট্রেট গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে।

এ বিষয়ে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়কেন্দ্রের প্রিসাইডিং অফিসার মো. শহিদুজ্জামান জানান, কেন্দ্রের ভেতরে স্কুলের মাঠে দুপক্ষের মধ্যে উত্তেজনা দেখে ভোটার ছাড়া সবাইকে বের করে দেওয়ার জন্য আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে নির্দেশ দেওয়া হয়। পরে পুলিশ সবাইকে বের করে দিলে পরিস্থিতি শান্ত হয়। এ ঘটনায় ভোটগ্রহণে কোনো সমস্যা হয়নি বলেও জানান তিনি।